Skip to content

বিএনপির মূল লক্ষ্য মানুষের হারানো অধিকার ফিরিয়ে আনা: সিলেটের সমাবেশে মির্জা ফখরুল

বিএনপির মূল লক্ষ্য মানুষের হারানো অধিকার ফিরিয়ে আনা: সিলেটের সমাবেশে মির্জা ফখরুল

বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল-বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন যে তাদের দলের মূল লক্ষ্য হচ্ছে ভোটের অধিকারসহ মানুষের হারানো অধিকার ফিরিয়ে আনা। তিনি বলেন, “সরকারের ‘হুমকি এবার কাজ করবে না, কারণ দেশবাসী তাদের ভোটাধিকার পুনরুদ্ধার না হওয়া পর্যন্ত ঘরে ফিরবে না।”

শনিবার (১৯ নভেম্বর) সিলেটের বিভাগীয় সমাবেশে দেওয়া বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন। বিএনপি মহাসচিব বলেন, “নির্দলীয় তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন হতে হবে এবং যারা এই নির্বাচন ব্যবস্থার বিরোধিতা করবে তারা জনশত্রু হয়ে যাবে।”

মির্জা ফখরুল বলেন, “প্রধানমন্ত্রী হুমকি দিয়েছেন যে, আমরা আন্দোলন করতে গেলে হেফাজতের পরিণতি হবে। আমরা বলতে চাই এবার জনগণ জেগে উঠেছে। সুতরাং, এই হুমকি এবার কাজ করবে না। যারা রাস্তায় নেমেছে, তারা তাদের দাবি আদায় না করে ঘরে ফিরবে না।”

বিএনপি মহাসচিব আরও বলেন যে তাদের দলের মূল লক্ষ্য হচ্ছে ভোটের অধিকারসহ মানুষের হারানো অধিকার ফিরিয়ে আনা। তিনি বলেন, “আমরা জনগণের ভোটের মাধ্যমে জনগণের সরকার প্রতিষ্ঠা করব…আমাদের নেতাকর্মীদের গুলি করে আমাদের আন্দোলন বন্ধ করা যাবে না।”

সংবিধান অনুযায়ী নির্বাচন হবে বলে ক্ষমতাসীন দলের বক্তব্য প্রসঙ্গে মির্জা ফখরুল বলেন, বর্তমান সরকারের সংশোধিত আইন তাদের দল মানে না। বিএনপি মহাসচিব বলেন, “সরকার বিচার বিভাগকে ব্যবহার করে তত্ত্বাবধায়ক সরকার ব্যবস্থা বাতিল করে দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন অনুষ্ঠানের সুযোগ তৈরি করেছে।”

মির্জা ফখরুল বলেন, “একটি বিশ্বাসযোগ্য জাতীয় নির্বাচন নিশ্চিত করতে, খালেদা জিয়া সংবিধানে যে তত্ত্বাবধায়ক সরকার অন্তর্ভুক্ত করেছিলেন, তা পুনরুদ্ধার করতে হবে। তত্ত্বাবধায়ক সরকার ছাড়া বাংলাদেশে কোনো নির্বাচন হবে না।” তত্ত্বাবধায়ক সরকার ব্যবস্থা পুনঃপ্রতিষ্ঠা দেশের রাজনৈতিক সংকট সমাধানের একমাত্র উপায় বলে উল্লেখ করেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল।

বিএনপির পূর্বঘোষিত কর্মসূচির অংশ হিসেবে সিলেট সরকারি আলিয়া মাদরাসা মাঠে এই সমাবেশের আয়োজন করা হয়।

সূত্র: ভয়েজ অব আমেরিকা