বার্নপুরে দিলীপকে ঘিরে বিক্ষোভ, ‘খেলা হবে’ স্লোগান, পাল্টা ‘জয় শ্রীরাম’ ধ্বনি বিজেপি সমর্থকদের

bredcrumb

West Bengal

oi-Bahni Sanyal Dutta

Google Oneindia Bengali News

সাত সকালে আসানসোলের বার্নপুরে তুমুল উত্তেজনা। দিলীপ ঘোষের চায়ের আড্ডায় খেলা হবে স্লোগান। তৃণমূল কংগ্রেস কর্মীরা বিক্ষোভ দেখান বলে অভিযোগ। এমনকী দিলীপ ঘোষ মুর্দাবাদ স্লোগানও দিতে থাকেন তৃণমূল কংগ্রেস কর্মীরা। তারপরেই পাল্টা জয় শ্রীরাম ধ্বনি তুলতে থাকেন বিজেপি কর্মী সমর্থকরা। দুই পক্ষের স্লোগান-পাল্টা স্লোগানে উত্তপ্ত হয়ে ওঠে এলাকা। পরিস্থিতি সামাল দিতে ব়্যাফ নামানো হয়।

দিলীপ ঘোষকে ঘিরে বিক্ষোভ


বুধবার বার্নপুরে প্রাতর্ভ্রমণে বেরিয়েছিলেন দিলীপ ঘোষ। তাঁর সঙ্গে ছিলেন বেশ কিছু বিজেপি কর্মী সমর্থকও। বার্নপুর বাসস্ট্যান্ডে একটি চায়ের দোকানে চা-চক্র কর্মসূচি করছিলেন তিনি। সেসময় তাঁকে ঘিরে খেলা হবে স্লোগান দিতে শুরু করেন তৃণমূল কংগ্রেস কর্মী সমর্থকরা। ওঠে দিলীপ ঘোষ মুর্দাবাদ স্লোগানও। পাল্টা জয় শ্রীরাম ধ্বনি তুলতে শুরু করেন বিজেপি কর্মী সমর্থকরা। দেওয়া হয় নরেন্দ্র মোদী জিন্দাবাদ। পাল্টা বিজেপি হঠাও স্লোগান তুললেছেন তৃণমূল কর্মী সমর্থকরা। পরিস্থিতি সামাল দিতে শেষে ব়্যাফ নামাতে হয়। এই নিয়ে তুমুল উত্তেজনা তৈরি হয় বার্নপুরের বাসস্ট্যান্ড চত্ত্বরে।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য আসানসোলরে নিজের গড় বলেই মনে করে বিজেপি। এই কেন্দ্রে বিজেপির টিকিটে জয়ী হয়েছিলেন বাবুল সুপ্রিয়। গত কয়েক বছর ধরেই আসানসোল লোকসভা কেন্দ্রে বিজেপির ভোটারের সংখ্যা ভাল। কিন্তু গত কয়েক মাসে আসানসোলের রাজনৈতিক চরিত্র পরিবর্তন হয়েছে। বিজেপি সাংসদ বাবুল সুপ্রিয় যোগ দিয়েছেন তৃণমূল কংগ্রেসে। সাংসদ পদ থেকেও ইস্তফা দিয়েছেন বাবুল সুপ্রিয়। বাবুল সুপ্রিয়কে নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করেছেন ৃদিলীপ ঘোষ। তার জেরেই এই বিক্ষোভ বলে মনে করছেন রাজনৈতিক মহল।

দিলীপ ঘোষের চা-চক্রে তৃণমূলের প্রতিবাদ | Oneindia Bengali

গতকাল তৃণমূল কংগ্রেসে একাধিক বর্ষিয়ান রাজনৈতিক নেতা যোগ দিয়েছেন। তার প্রেক্ষিতে দিলীপ ঘোষ কটাক্ষ করে বলেছেন, তৃণমূল কংগ্রেস রিটায় পার্সনদের পার্টি হয়ে যাচ্ছে। গতকাল দিল্লিতে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাছে তৃণমূল কংগ্রেসে যোগদান করেছেন প্রাক্তন জেডিইউ সাংসদ পবন ভর্মা। যোগদান করেছেন হরিয়ানার প্রবীণ নেতা অশোক তনওয়ার এবং কংগ্রেস নেতা কীর্তি আজাদ। পবন ভর্মার যোগদানের ফলে বিহারে সংগঠন শক্তিশালী করতে চাইছে তৃণমূল কংগ্রেস। একই সঙ্গে হরিয়ানাতেও অশোক তনওয়ারের হাত ধরে সংগঠন শক্তিশালী করার েচষ্টা চালাচ্ছে তৃণমূল কংগ্রেস। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় গতকাল জানিয়েছেন তিনি হরিয়ানাতেও যাবেন। একই সঙ্গে স্লোগান তুলেছেন, জয় হিন্দুস্তান। জাতীয় রাজনীতিক মঞ্চে পা রাখতে শুরু করে দিয়েছে তৃণমল কংগ্রেস। একের পর এক রাজনৈতিক নেতার তৃণমূল কংগ্রেসে যোগদান ঘিরে ২০২৪-র প্রস্তুতি শুরু হয়ে গিয়েছে। গোয়ায় আগেই সংগঠন তৈরি করে ফেলেছে তৃণমূল কংগ্রেস। মোদীকে চ্যালেঞ্জ জানাতে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে মুখ করে লড়ার ক্ষেত্র তৈরি করতে চাইছে তৃণমূল কংগ্রেস।

English summary

Agitation against Dilip Ghosh

বার্তা সূত্র

Share on facebook
Share on twitter
Share on whatsapp
Share on email