Skip to content

চুপচাপ স্কুলে ঢুকেছিল ২৫ বছরের যুবক, ঢুকেই প্রিন্সিপালকে লক্ষ্য করে চালাল গুলি, তারপর…

স্কুলের বাইরে ভিড়। ছবি: টুইটার।

হিউস্টন: প্রিন্সিপালকেই গুলি করল প্রাক্তন ছাত্র। মার্কিন স্কুলে বন্দুকবাজের হামলা ঘিরে ছড়িয়েছে আতঙ্ক। শুক্রবার টেক্সাসের একটি স্কুলে হামলা চালায় বন্দুকবাজ। সরাসরি প্রিন্সিপালকে লক্ষ্য করেই গুলি চালায় ওই যুবক। তবে স্কুলের কোনও পড়ুয়া আহত হয়নি বলেই জানা গিয়েছে। অভিযুক্ত বন্দুকবাজকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

স্থানীয় সংবাদমাধ্যম সূত্রে জানা গিয়েছে, টেস্টাসের হিউস্টনে ইয়েস প্রেপ সাউথওয়েস্ট সেকেন্ডারি স্কুলে শুক্রবার সকাল সাড়ে ১১টা নাগাদ আচমকাই ঢুকে পড়ে এক ২৫ বছরের যুবক। সরাসরি প্রিন্সিপালের ঘরের সামনেই উপস্থিত হয় সে। বন্ধ কাঁচের দরজার ওপার থেকেই প্রিন্সিপালকে লক্ষ্য করে গুলি করে ওই যুবক। এরপরই গোটা স্কুলে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে।

প্রথমে মনে করা হয়েছিল, স্কুলের কোনও সাফাইকর্মী আহত হয়েছেন। পরে স্কুলের তরফে প্রকাশিত বিবৃতিতে জানানো হয়, স্কুলের প্রিন্সিপালকে লক্ষ্য করেই গুলি করেছিল ওই আততায়ী। সেই গুলিটি তাঁর পিঠে লাগে। গুলির আঘাতে তিনি বেঁচে গেলেও  অবস্থা সঙ্কটজনক বলেই জানা যাচ্ছে।

স্থানীয় পুলিশ জানিয়েছে, গুলি চালনার ঘটনার কিছুক্ষণের মধ্যেই অভিযুক্তকে গ্রেফতার করা হয়েছে। নাম প্রকা্শ না করা হলেও জানা গিয়েছে, অভিযুক্ত ২৫ বছরের ওই যুবক ওই স্কুলেরই প্রাক্তন ছাত্র। ওই প্রিন্সিপালের সঙ্গে তাঁর ব্য়ক্তিগত কোনও শত্রুতা রয়েছে কিনা, তা জানার চেষ্টা করা হচ্ছে।

এদিকে, স্কুলের ভিতরই গুলি চলায় আতঙ্কিত হয়ে পড়ে পড়ুয়ারা। ভাইরাল হওয়া একাধিক ভিডিয়োয় দেখা যায়, স্কুলের বাইরে দাড়িয়ে রয়েছেন অভিভাবকরা। তাদের চোখেমুখে উদ্বেগ। পড়ুয়ারা সুরক্ষিতভাবে বেড়িয়ে আসতেই কান্নায় ভেঙে পড়েন তারা।

বন্দুকবাজের হামলার পরই গোটা এলাকা জুড়ে কড়া সতর্কতা জারি করা হয়। সকল বাসিন্দাদের বাড়িতেই থাকার অনুরোধ করা হয়। অচেনা ব্যক্তিদের আশ্রয় না দেওয়ারও নির্দেশ দেওয়া হয়। আকাশপথে পুলিশকে টহল দিতেও দেখা যায়। হিউস্টন পুলিশ টুইটারে জানিয়েছে, ওই ঘটনায় আরও কেউ অভিযুক্ত ছিল কিনা, তা খুঁজে দেখা হচ্ছে। এলকাজুড়ে তল্লাশি অভিয়ান শুরু করা হয়েছে।

স্থানীয় সংবাদমাধ্যম সূত্রে জানা গিয়েছে, সাড়ে ১১টা নাগাদ আততায়ী স্কুলের ভিতরে ঢোকে। ১১টা ৪৫ মিনিট নাগদ গুলি চালানোর শব্দ শোনা যায়। ওই স্কুলে মোট ১ হাজারেরও বেশি পড়ুয়া রয়েছে। ঘটনার সময়ও কমপক্ষে ৩০০ থেকে ৪০০ পড়ুয়া উপস্থিত ছিল বলে জানা গিয়েছে।

এই স্কুল থেকে মাত্র ৫০ কিলোমিটার দূরেই মার্কিন ইতিহাসে অন্যতম ভয়ানক গুলি চালনার ঘটনা ঘটেছিল। ২০১৮ সালের মে মাসে এক ১৭ বছরের কিশোর একটি শটগান ও পিস্তল হাতে সান্টা ফে হাইস্কুলে ঢুকে পড়ে এবং পড়ুয়াদের লক্ষ্য করে এলোপাথাড়ি গুলি চালাতে শুরু করে। সেই ঘটনায় কমপক্ষে ১০ পড়ুয়ার মৃত্যু হয়েছিল। আমেরিকায় ক্রমাগত বন্দুকবাজের হামলা নিয়ে সম্প্রতিই উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনও।



বার্তা সূত্র